• ২০ ব্যাংকের আর্থিক প্রতিবেদন প্রকাশ

    ইতিবাচক অবস্থানে ১৩ ব্যাংক

    | ২৩ মে ২০২১ | ১১:২৯ পূর্বাহ্ণ

    ইতিবাচক অবস্থানে ১৩ ব্যাংক
    apps

    সম্প্রতি প্রকাশিত হয়েছে পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত ব্যাংক খাতের ২০ কোম্পানির প্রথম প্রান্তিকের অনিরিক্ষীত আর্থিক প্রতিবেদন।

    প্রকাশিত আর্থিক প্রতিবেদন অনুযায়ী গত বছরের তুলনায় শেয়ারপ্রতি আয় বেড়েছে ১৩ ব্যাংকের। ব্যাংকগুলো হলো- ব্র্যাক ব্যাংক লিমিটেড, সিটি ব্যাংক লিমিটেড, ইষ্টার্ন ব্যাংক লিমিটেডের (ইবিএল), আইএফআইসি ব্যাংক লিমিটেড, ইসলামী ব্যাংক বাংলাদেশ লিমিটেড, যমুনা ব্যাংক লিমিটেড, মার্কেন্টাইল ব্যাংক লিমিটেড, মিউচুয়াল ট্রাস্ট ব্যাংক (এমটিবি), ওয়ান ব্যাংক লিমিটেড, প্রিমিয়ার ব্যাংক লিমিটেড, প্রাইম ব্যাংক লিমিটেড, শাহজালাল ইসলামী ব্যাংক লিমিটেড এবং সাউথইস্ট ব্যাংক লিমিটেড। প্রথম প্রান্তিকে আয় কমেছে ৬ ব্যাংকের। ব্যাংকগুলো হলো- ব্যাংক এশিয়া লিমিটেড, ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংক লিমিটেড, এনসিসি ব্যাংক লিমিটেড, পূবালী ব্যাংক লিমিটেড, স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংক লিমিটেড এবং উত্তরা ব্যাংক লিমিটেড। শুধুমাত্র আইসিবি ইসলামী ব্যাংক লোকসানে রয়েছে। ডিএসই সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

    Progoti-Insurance-AAA.jpg

    ব্যাংক এশিয়া লিমিটেড : চলতি বছরের প্রথম প্রান্তিকে (জানুয়ারি’২১-মার্চ’২১) সহযোগী প্রতিষ্ঠানের আয়সহ ব্যাংক এশিয়ার সমন্বিত শেয়ার প্রতি আয় (কনসোলিডেটেড ইপিএস) হয়েছে ১ টাকা ৫ পয়সা, যা গত বছরের একই সময়ে ১ টাকা ১৬ পয়সা ছিল। অর্থাৎ প্রথম প্রান্তিকে আয় কমেছে ১১ পয়সা।
    অন্যদিকে, এককভাবে ব্যাংক এশিয়ার শেয়ার প্রতি আয় (সলো ইপিএস) হয়েছে ১ টাকা ৪ পয়সা, যা গত বছরের একই সময়ে ১ টাকা ১৮ পয়সা ছিল। অর্থাৎ প্রথম প্রান্তিকে আয় কমেছে ১৪ পয়সা।

    ব্র্যাক ব্যাংক লিমিটেড : চলতি হিসাববছরের প্রথম প্রান্তিকে (জানুয়ারি’২১-মার্চ’২১) সহযোগী প্রতিষ্ঠানের আয়সহ ব্যাংকটির সমন্বিত শেয়ার প্রতি আয় (কনসোলিডেটেড ইপিএস) হয়েছে ৯৩ পয়সা। গত বছর একই সময়ে ব্যাংকটির সমন্বিত ইপিএস হয়েছিল ৬৬ পয়সা। অর্থাৎ প্রথম প্রান্তিকে আয় বেড়েছে ২৭ পয়সা।
    চলতি হিসাববছরের প্রথম প্রান্তিকে (জানুয়ারি’২১-মার্চ’২১) এককভাবে ব্যাংকটির শেয়ার প্রতি আয় (সলো ইপিএস) হয়েছে ১ টাকা ৬ পয়সা। গত বছর একই সময়ে ব্যাংকটির সলো ইপিএস হয়েছিল ৮১ পয়সা। অর্থাৎ প্রথম প্রান্তিকে আয় বেড়েছে ২৫ পয়সা।
    গত ৩১ মার্চ, ২০২১ তারিখে সমন্বিতভাবে ব্যাংকটির শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য ছিল ৩৬ টাকা ২৪ পয়সা।


    সিটি ব্যাংক লিমিটেড : প্রথম প্রান্তিকে (জানুয়ারি’২১-মার্চ’২১) কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি আয় (কনসোলিডেটেড ইপিএস) হয়েছে ৯৮ পয়সা, যা গত বছর একই সময়ে ছিল ৭৫ পয়সা। অর্থাৎ প্রথম প্রান্তিকে আয় বেড়েছে ২৩ পয়সা।
    অন্যদিকে, প্রথম প্রান্তিকে (জানুয়ারি’২১-মার্চ’২১) এককভাবে সিটি ব্যাংকের শেয়ার প্রতি আয় (সলো ইপিএস) হয়েছে ৮১ পয়সা, যা গত বছর একই সময়ে ছিল ৬৫ পয়সা।
    গত ৩১ মার্চ, ২০২১ তারিখে সমন্বিতভাবে ব্যাংকটির শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য ছিল ২৯ টাকা ৩৮ পয়সা।

    ইষ্টার্ন ব্যাংক লিমিটেডের (ইবিএল) : প্রথম প্রান্তিকে (জানুয়ারি’২১-মার্চ’২১) অনিরিক্ষীত আর্থিক প্রতিবেদন অনুযায়ী ব্যাংকটির শেয়ার প্রতি আয় (কনসোলিডেটেড ইপিএস) হয়েছে ১ টাকা ২৮ পয়সা, যা গত বছর একই সময়ে ১ টাকা ৩ পয়সা ছিল। অর্থাৎ গত বছরের একই সময়ের তুলনায় শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) বেড়েছে ২৫ পয়সা।
    অন্যদিকে, প্রথম প্রান্তিকে (জানুয়ারি’২১-মার্চ’২১) এককভাবে ইবিএলের ব্যাংকের শেয়ার প্রতি আয় (সলো ইপিএস) হয়েছে ১ টাকা ২৬ পয়সা, যা গত বছর একই সময়ে ১ টাকা ৩ পয়সা ছিল। অর্থাৎ গত বছরের একই সময়ের তুলনায় শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) বেড়েছে ২৩ পয়সা।
    গত ৩১ মার্চ, ২০২১ তারিখে সমন্বিতভাবে ব্যাংকটির শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য ছিল ৩৭ টাকা ২ পয়সা।

    ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংক লিমিটেড : প্রথম প্রান্তিকে (জানুয়ারি’২১-মার্চ’২১) সহযোগী প্রতিষ্ঠানের আয়সহ ব্যাংকটির সমন্বিত শেয়ার প্রতি আয় (কনসোলিডেটেড ইপিএস) হয়েছে ৩২ পয়সা, যা গত বছর একই সময়ে ছিল ৬৬ পয়সা। অর্থাৎ প্রথম প্রান্তিকে আয় কমেছে ৩৪ পয়সা।
    ৩১ মার্চ,২০২১ সমাপ্ত সময়ে ব্যাংটির শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য হয়েছে ১৯ টাকা ২৪ পয়সা।

    আইএফআইসি ব্যাংক লিমিটেড : চলতি হিসাববছরের প্রথম প্রান্তিকের (জানুয়ারি’২১-মার্চ’২১) অনিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন প্রকাশ অনুযায়ী সহযোগী প্রতিষ্ঠানের আয়সহ ব্যাংকটির সমন্বিত শেয়ার প্রতি আয় (কনসোলিডেটেড ইপিএস) হয়েছে ৪৬ পয়সা। গত বছরের একই সময়ে সমন্বিত ইপিএস ছিল ৩৭ পয়সা। অর্থাৎ প্রথম প্রান্তিকে আয় বেড়েছে ৯ পয়সা। অন্যদিকে প্রথম প্রান্তিকে এককভাবে ব্যাংকটির শেয়ার প্রতি আয় (সলো ইপিএস) হয়েছে ৪৪ পয়সা। গত বছরের একই সময়ে একক ইপিএস ছিল ৩৭ পয়সা। অর্থাৎ প্রথম প্রান্তিকে আয় বেড়েছে ৭ পয়সা।
    ৩১ মার্চ, ২০২১ তারিখে ব্যাংকটির সমন্বিত শেয়ার প্রতি প্রকৃত সম্পদ মূল্য (এনএভিপিএস) ছিল ১৭ টাকা ৫৭ পয়সা।

    ইসলামী ব্যাংক বাংলাদেশ লিমিটেড : প্রথম প্রান্তিকের (জানুয়ারি-মার্চ,২১) কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ৪৫ পয়সা। গত অর্থবছরের একই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) ছিল ৪৩ পয়সা। অর্থাৎ প্রথম প্রান্তিকে আয় বেড়েছে ২ পয়সা।
    একই সময়ে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি সমন্বিত সম্পদ (এনএভি) হয়েছে ৩৯ টাকা ৩৩ পয়সা।

    আইসিবি ইসলামী ব্যাংক : প্রথম প্রান্তিকে ব্যাংকটির শেয়ার প্রতি লোকসান দাঁড়িয়েছে ০.১৫ টাকা। গত অর্থবছরের একই সময়ে যার পরিমাণ ছিল ০.০৯ টাকা। এদিকে ব্যাংকটির শেয়ার প্রতি নেট অপারেটিং ক্যাশ ফ্লো (এনওসিএফএফপিএস) দাঁড়িয়েছে ০.১৩ টাকা। গত অর্থবছরের ব্যাংকটির শেয়ার প্রতি নেট অপারেটিং ক্যাশ ফ্লো ছিল ০.১৫ (নেগেটিভ)। এছাড়া ৩১ মার্চ ২০২১ অনুযায়ী শেয়ার প্রতি নেট সম্পদ মূল্য (এনএভিপিএস) দাঁড়িয়েছে ১৭.৬৯ টাকা (নেগেটিভ)।

    যমুনা ব্যাংক লিমিটেড : চলতি হিসাববছরের প্রথম প্রান্তিকের (জানুয়ারি’২১-মার্চ’২১) অনিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন অনুযায়ী সহযোগী প্রতিষ্ঠানের আয়সহ ব্যাংকটির সমন্বিত শেয়ার প্রতি আয় (কনসোলিডেটেড ইপিএস) হয়েছে ১ টাকা ৬০ পয়সা, যা গত বছরের একই সময়ে ১ টাকা ৪২ পয়সা ছিল। অর্থাৎ প্রথম প্রান্তিকে আয় বেড়েছে ১৮ পয়সা।
    অন্যদিকে প্রথম প্রান্তিকে এককভাবে ব্যাংকটির শেয়ার প্রতি আয় (সলো ইপিএস) হয়েছে ১ টাকা ৫৯ পয়সা, যা গত বছরের একই সময়ে ১ টাকা ৪৫ পয়সা ছিল। অর্থাৎ প্রথম প্রান্তিকে আয় বেড়েছে ১৪ পয়সা।
    গত ৩১ মার্চ, ২০২১ তারিখে সমন্বিতভাবে ব্যাংকটির শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য (এনএভিপিএস) ছিল ৪১ টাকা ৪২ পয়সা।

    মার্কেন্টাইল ব্যাংক লিমিটেড : চলতি হিসাববছরের প্রথম প্রান্তিকের (জানুয়ারি’২১-মার্চ’২১) অনিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন অনুযায়ী সহযোগী প্রতিষ্ঠানের আয়সহ মার্কেন্টাইল ব্যাংকের সমন্বিত শেয়ার প্রতি আ্য় (কনসোলিডেটেড ইপিএস) হয়েছে ৬৪ পয়সা। গত বছর একই সময়ে সমন্বিত ইপিএস ছিল ৫৫ পয়সা। অর্থাৎ প্রথম প্রান্তিকে আয় বেড়েছে ৯ পয়সা।
    অন্যদিকে প্রথম প্রান্তিকে এককভাবে মার্কেন্টাইল ব্যাংকের শেয়ার প্রতি আয় (সলো ইপিএস) হয়েছে ৫৬ পয়সা, যা গত বছরের একই সময়ে ৫৩ পয়সা ছিল। অর্থাৎ প্রথম প্রান্তিকে আয় বেড়েছে ৩ পয়সা।
    গত ৩১ মার্চ, ২০২১ তারিখে সমন্বিতভাবে শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য (এনএভিপিএস) ছিল ২২ টাকা ৯৯ পয়সা।

    মিউচুয়াল ট্রাস্ট ব্যাংক (এমটিবি) : প্রথম প্রান্তিকে (জানুয়ারি’২১-মার্চ’২১) সহযোগী প্রতিষ্ঠানের আয়সহ এমটিবির সমন্বিত শেয়ার প্রতি আয় (কনসোলিডেটেড ইপিএস) হয়েছে ৮১ পয়সা, যা গত বছরের একই সময়ে ৭২ পয়সা ছিল। অর্থাৎ প্রথম প্রান্তিকে আয় বেড়েছে ৯ পয়সা।
    অন্যদিকে, প্রথম প্রান্তিকে এককভাবে এমটিবির শেয়ার প্রতি আয় (সলো ইপিএস) হয়েছে ৭৬ পয়সা, যা গত বছরের একই সময়ে ৭১ পয়সা ছিল। অর্থাৎ প্রথম প্রান্তিকে আয় বেড়েছে ৫ পয়সা।
    গত ৩১ মার্চ, ২০২১ তারিখে সমন্বিতভাবে এমটিবির শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য (এনএভিপিএস) ছিল ২৩ টাকা ৯৯ পয়সা।

    এনসিসি ব্যাংক লিমিটেড : চলতি হিসাববছরের প্রথম প্রান্তিকে (জানুয়ারি’২১-মার্চ’২১) সহযোগী প্রতিষ্ঠানের আয়সহ ব্যাংকটির সমন্বিত শেয়ার প্রতি আয় (কনসোলিটেড ইপিএস) হয়েছে ৫৫ পয়সা। গত বছর একই সময়ে ব্যাংকটির সমন্বিত ইপিএস হয়েছিল ৮২ পয়সা। অর্থাৎ প্রথম প্রান্তিকে আয় কমেছে ২৭ পয়সা।
    গত ৩১ মার্চ, ২০২১ তারিখে সমন্বিতভাবে ব্যাংকটির শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য ছিল ২২ টাকা ৪৬ পয়সা।

    ওয়ান ব্যাংক লিমিটেড : প্রথম প্রান্তিকে (জানুয়ারি’২১-মার্চ’২১) সহযোগী প্রতিষ্ঠানের আয়সহ ওয়ান ব্যাংকের সমন্বিত শেয়ার প্রতি আয় (কনসোলিডেটেড ইপিএস) হয়েছে ৮৪ পয়সা, যা গত বছরের একই সময়ে ৭৯ পয়সা ছিল। অর্থাৎ প্রথম প্রান্তিকে আয় বেড়েছে ৫ পয়সা।
    গত ৩১ মার্চ, ২০২১ তারিখে সমন্বিতভাবে ওয়ান ব্যাংকের শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য (এনএভিপিএস) ছিল ২০ টাকা ১৫ পয়সা।

    প্রিমিয়ার ব্যাংক লিমিটেড : প্রথম প্রান্তিকে (জানুয়ারি’২১-মার্চ’২১) কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি আয় (কনসোলিডেটেড ইপিএস) হয়েছে ৬০ পয়সা, যা গত বছর একই সময়ে ছিল ৫৫ পয়সা। অর্থাৎ প্রথম প্রান্তিকে আয় বেড়েছে ৫ পয়সা।
    অন্যদিকে, প্রথম প্রান্তিকে (জানুয়ারি’২১-মার্চ’২১) এককভাবে সিটি ব্যাংকের শেয়ার প্রতি আয় (সলো ইপিএস) হয়েছে ৬০ পয়সা, যা গত বছর একই সময়ে ছিল ৫৯ পয়সা। অর্থাৎ প্রথম প্রান্তিকে আয় বেড়েছে এক পয়সা।
    গত ৩১ মার্চ, ২০২১ তারিখে সমন্বিতভাবে ব্যাংকটির শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য ছিল ২১ টাকা ৬২ পয়সা।

    প্রাইম ব্যাংক লিমিটেড: প্রথম প্রান্তিকে (জানুয়ারি’২১-মার্চ’২১) সহযোগী প্রতিষ্ঠানের আয়সহ ব্যাংকটির সমন্বিত শেয়ার প্রতি আয় (কনসোলিডেটেড ইপিএস) হয়েছে ১ টাকা ৩৪ পয়সা, যা গত বছর একই সময়ে ছিল ৪৬ পয়সা। অর্থাৎ প্রথম প্রান্তিকে আয় বেড়েছে ৮৮ পয়সা।
    প্রথম প্রান্তিকে (জানুয়ারি’২১-মার্চ’২১) এককভাবে ব্যাংকটির শেয়ার প্রতি আয় (সলো ইপিএস) হয়েছে ১ টাকা ৩৭ পয়সা। গত বছর একই সময়ে ব্যাংকটির সলো ইপিএস হয়েছিল ৪৯ পয়সা।
    গত ৩১ মার্চ, ২০২১ তারিখে সমন্বিতভাবে ব্যাংকটির শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য ছিল ২৬ টাকা ৩৫ পয়সা।

    পূবালী ব্যাংক লিমিটেড : চলতি হিসাববছরের প্রথম প্রান্তিকে (জানুয়ারি-মার্চ’২১) ব্যাংকটির শেয়ার প্রতি কনসুলেটেড আয় হয়েছে ৯৮ পয়সা। আগের হিসাবছরের একই সময়ে ৮৬ পয়সা ছিল। অর্থাৎ প্রথম প্রান্তিকে আয় কমেছে ১২ পয়সা।
    ৩১ মার্চ, ২০২১ তারিখে ব্যাংকটির শেয়ার প্রতি কনসুলেটেড নিট সম্পদ মূল্য (এনএভিপিএস) ছিল ৩৮ টাকা ৬৫ পয়সা।

    শাহজালাল ইসলামী ব্যাংক লিমিটেড : প্রথম প্রান্তিকে (জানুয়ারি’২১-মার্চ’২১) অনিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন অনুযায়ী সহযোগী প্রতিষ্ঠানের আয়সহ ব্যাংকটির সমন্বিত শেয়ার প্রতি আয় (কনসোলিডেটেড ইপিএস) হয়েছে ৬৫ পয়সা, যা গত বছরের একই সময়ে ৬১ পয়সা ছিল। অর্থাৎ প্রথম প্রান্তিকে আয় বেড়েছে ৪ পয়সা।
    অন্যদিকে, প্রথম প্রান্তিকে এককভাবে ব্যাংকটির শেয়ার প্রতি আয় (সলো ইপিএস) হয়েছে ৬৪ পয়সা, যা গত বছরের একই সময়ে ৬২ পয়সা ছিল। অর্থাৎ প্রথম প্রান্তিকে আয় বেড়েছে ২ পয়সা।
    গত ৩১ মার্চ, ২০২১ তারিখে সমন্বিতভাবে ব্যাংকটির শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য (এনএভিপিএস) ছিল ১৮ টাকা ২৯ পয়সা।

    সাউথইস্ট ব্যাংক লিমিটেড : প্রথম প্রান্তিকের (জানুয়ারি-মার্চ,২১) কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ১.১৭ পয়সা। গত অর্থবছরের একই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) ছিল ৯৫ পয়সা। অর্থাৎ প্রথম প্রান্তিকে আয় বেড়েছে ২২ পয়সা।
    একই সময়ে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি সমন্বিত সম্পদ (এনএভি) হয়েছে ২৬ টাকা ১০ পয়সা।

    স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংক লিমিটেড : কোম্পানিটি প্রথম প্রান্তিকের (জানুয়ারি’২১-মার্চ’২১) অনিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে। প্রথম প্রান্তিকে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ১৭ পয়সা। গত বছরের একই সময়ে শেয়ার প্রতি ৩৬ পয়সা আয় ছিল। অর্থাৎ প্রথম প্রান্তিকে আয় কমেছে ১৯ পয়সা।
    গত ৩১ মার্চ, ২০২১ তারিখে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য (এনএভিপিএস) ছিল ১৭ টাকা ৩৫ পয়সা।

    উত্তরা ব্যাংক লিমিটেড : প্রথম প্রান্তিকে (জানুয়ারি’২১-মার্চ’২১) ব্যাংকটির শেয়ার প্রতি আয় (কনসোলিডেটেড ইপিএস) হয়েছে ৮৪ পয়সা, যা গত বছর একই সময়ে ছিল ১ টাকা ৩৪ পয়সা। অর্থাৎ প্রথম প্রান্তিকে আয় কমেছে এক টাকা ৫০ পয়সা। অন্যদিকে, প্রথম প্রান্তিকে (জানুয়ারি’২১-মার্চ’২১) এককভাবে ব্যাংকটির শেয়ার প্রতি আয় (সলো ইপিএস) হয়েছে ৮৩ পয়সা, যা গত বছর একই সময়ে ছিল ১ টাকা ৩৫ পয়সা। অর্থাৎ প্রথম প্রান্তিকে আয় কমেছে এক টাকা ৪৭ পয়সা।
    গত ৩১ মার্চ, ২০২১ তারিখে সমন্বিতভাবে ব্যাংকটির শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য ছিল ৩৫ টাকা ৫২ পয়সা।

     

    Facebook Comments Box

    বাংলাদেশ সময়: ১১:২৯ পূর্বাহ্ণ | রবিবার, ২৩ মে ২০২১

    bankbimaarthonity.com |

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    Archive Calendar

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১১২১৩
    ১৪১৫১৬১৭১৮১৯২০
    ২১২২২৩২৪২৫২৬২৭
    ২৮২৯৩০৩১  
  • ফেসবুকে ব্যাংক বীমা অর্থনীতি