সোমবার ১৫ এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ২ বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

করোনা পরিস্থিতিতে বীমা নিয়ন্ত্রণ সংস্থার আদেশ জারি

এক মাসের মধ্যেই মেয়াদোত্তীর্ণ বীমা পরিশোধ

নিজস্ব প্রতিবেদক:   |   সোমবার, ২০ এপ্রিল ২০২০   |   প্রিন্ট   |   1188 বার পঠিত

এক মাসের মধ্যেই মেয়াদোত্তীর্ণ বীমা পরিশোধ

করোনার প্রাদুর্ভাবে অন্য সবার মতো অর্থকষ্টে রয়েছেন বীমা গ্রাহকেরাও। সাধারণত মেয়াদোত্তীর্ণ বীমা পলিসির টাকা তিন মাসের মধ্যে গ্রাহকদের দেয়ার নিয়ম থাকলেও বর্তমান পরিস্থিতির বিবেচনায় এ আদেশ জারি হয়েছে।

বীমা গ্রাহকদের স্বার্থে রোববার (১৯ এপ্রিল) বীমা কোম্পানিগুলোর উদ্দেশে এমন আদেশ জারি করেছে বীমা উন্নয়ন ও নিয়ন্ত্রণ কর্তৃপক্ষ (আইডিআরএ)।

এ বিষয়ে আইডিআরএ সদস্য মো. মোশাররফ হোসেন জানান, ‌’বিশ্বের প্রায় সব দেশের বীমা নিয়ন্ত্রক সংস্থাগুলো এ ধরনের উদ্যোগ নিয়েছে বলে আমরা জেনেছি। আমাদের দেশেও জনস্বার্থে এই আদেশ দেওয়া হয়েছে।’

আইডিআরএ বলেছে, দেশের বীমা কোম্পানিগুলোতে প্রায় ১ কোটিরও বেশি বীমা গ্রাহক রয়েছেন। তাদের মধ্যে কারও কারও বীমা পলিসির মেয়াদ এরই মধ্যে উত্তীর্ণ হয়েছে। কিন্তু পলিসির টাকা পাওয়ার কোনো উদ্যোগ নিতে পারছেন না তারা।

করোনাভাইরাসের প্রভাবে সৃষ্ট অর্থসংকটে থাকা বীমা গ্রাহকদের সহযোগিতা করার স্বার্থে তাই মেয়াদউত্তীর্ণ পলিসিগুলোর বিপরীতে প্রাপ্য দাবি ৯০ দিনের পরিবর্তে ৩০ দিনের মধ্যে পরিশোধ করতে হবে। এ ক্ষেত্রে গ্রাহকের আবেদনের জন্য অপেক্ষা করা যাবে না। নিজেদের কাছে সংরক্ষিত তথ্যভান্ডার থেকে মেয়াদ উত্তীর্ণের তালিকা নিয়ে কোম্পানিগুলোকেই গ্রাহকের সাথে যোগাযোগ করতে হবে। এরপর অনলাইনে গ্রাহকের ব্যাংকে বীমা দাবির টাকা পরিশোধের ব্যবস্থা করতে হবে।

আইডিআরএ আরও বলেছে, অনেকের বীমা পলিসির প্রিমিয়াম জমার সময় হলেও চলাফেরায় বিধিনিষেধ থাকায় তাও জমা দিতে পারছেন না। বেসরকারি কোম্পানিগুলো এবং সরকারি দুই সংস্থার অফিস বন্ধ থাকাও অবশ্য প্রিমিয়ামের টাকা জমা দিতে না পারার অন্যতম কারণ।

এদিকে মোটর বীমার ক্ষেত্রে অনেক পলিসি মেয়াদ উত্তীর্ণ হলেও নতুনভাবে পলিসি রিনিউ করতে পারছেন অনেকে। আবার বীমা প্রতিষ্ঠানগুলোকে বীমা আইন অনুযায়ী প্রয়োজনীয় প্রতিবেদন কাছে। তাও দাখিল করতে পারছে না তারা। এই পরিস্থিতি আইডিআরএ আদেশটি জারি করেছে।

আদেশে বলা হয়েছে, গত ২৫ মার্চ থেকে আগামী ২৫ এপ্রিলের তারিখের মধ্যে যে সব জীবন বীমা পলিসির গ্রেস পিরিয়ড শেষ হয়েছে, তাদের সে সব পলিসির গ্রেস পিরিয়ডের মেয়াদ আরও ৪৫ দিন বাড়িয়ে দেওয়া হলো। এই সময়ে পলিসিগুলো চলমান হিসেবে বিবেচিত হবে।

বলা হয়, দেশব্যাপী যানবাহন চলাচল সীমিত থাকায় অধিকাংশ গাড়ি বন্ধ রয়েছে। বর্তমান পরিস্থিতিতে যে সব মোটর বীমার মেয়াদ আগামী ২৫ শে এপ্রিলের মধ্যে শেষ হচ্ছে কিন্তু নতুনভাবে কেউ তা রিনিউ করতে পারছেন না, সে সব পলিসির মেয়াদ কোনো প্রিমিয়াম ছাড়াই আরও ৪৫ দিন পর্যন্ত কার্যকর রাখা যেতে পারে।

করোনা পরিস্থিতি মোকাবিলায় সরকার ঘোষিত ছুটিকালীন সব ধরনের প্রতিবেদন ও রিটার্ন দাখিলের সময়সীমা আরও ২ মাস বাড়ি আইডিআরএ। বিদ্যমান পরিস্থিতিতে কোম্পানিগুলোর বাধ্যতামূলক এবং জরুরি পর্ষদ সভাগুলো ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে করার নির্দেশনা দিয়েছে।

বাংলাদেশ ইনস্যুরেন্স অ্যাসোশিয়নের (বিআইএ) সভাপতি শেখ কবির হোসেন বলেন, ‘মেয়াদোত্তীর্ণ পলিসির মেয়াদ ৩ মাসের পরিবর্তে এক মাসে দেওয়া তাদের পক্ষেই সম্ভব, যাদের সক্ষমতা আছে। আর অন্যগুলো ঠিকই আছে।’

Facebook Comments Box
(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

Posted ৯:১৩ পূর্বাহ্ণ | সোমবার, ২০ এপ্রিল ২০২০

bankbimaarthonity.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আর্কাইভ ক্যালেন্ডার

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২
১৩১৪১৫১৬১৭১৮১৯
২০২১২২২৩২৪২৫২৬
২৭২৮২৯৩০  
প্রধান সম্পাদক: মোহাম্মাদ মুনীরুজ্জামান
নিউজরুম:

মোবাইল: ০১৭১৫-০৭৬৫৯০, ০১৮৪২-০১২১৫১

ফোন: ০২-৮৩০০৭৭৩-৫, ই-মেইল: bankbima1@gmail.com

সম্পাদকীয় ও বাণিজ্যিক কার্যালয়: পিএইচপি টাওয়ার, ১০৭/২, কাকরাইল, ঢাকা-১০০০।