মঙ্গলবার ২৮ মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ১৪ জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ঢাকা দক্ষিণ সিটি ও রোমানিয়ার ‘সিস্টার সিটিজ’ সমঝোতা স্মারক

নিজস্ব প্রতিবেদক   |   মঙ্গলবার, ১৫ মার্চ ২০২২   |   প্রিন্ট   |   145 বার পঠিত

ঢাকা দক্ষিণ সিটি ও রোমানিয়ার ‘সিস্টার সিটিজ’ সমঝোতা স্মারক

ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন ও রোমানিয়ার রাজধানী বুখারেস্টের (থার্ড ডিস্ট্রিক্ট) মধ্যে দেশের প্রথম ‘সিস্টার সিটিজ’ সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরিত হয়েছে। মঙ্গলবার (১৫ মার্চ) দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের নগর ভবনের মেয়র হানিফ মিলনায়তনে দুই দেশের দুই সিটি করপোরেশনের মধ্যকার সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরিত হয়। ঢাকা দক্ষিণ সিটির মেয়র ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপস এবং বুখারেস্টের (থার্ড ডিস্ট্র্রিক্ট) মেয়র রবার্ট সোরিন নেগোইতা নিজ নিজ করপোরেশনের পক্ষে সমঝোতা স্মারকে স্বাক্ষর করেন।

এই সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরের মাধ্যমে দুই দেশের দুই সিটি করপোরেশনের মধ্যে পর্যটন শিল্পের বিকাশ, সাংস্কৃতিক বিনিময়, যানজট নিরসন ও আধুনিক বর্জ্য ব্যবস্থাপনায় কারিগরি তথ্য ও প্রযুক্তি বিনিময়, শিল্প-বাণিজ্যের বিকাশ এবং বিনিয়োগ প্রবাহ বৃদ্ধি ইত্যাদি নানা খাতে পারস্পারিক সহযোগিতার ভিত্তি রচিত হলো।

অনুষ্ঠানে দক্ষিণ সিটির মেয়র শেখ ফজলে নূর তাপস বলেন, আমাদের লালবাগ কেল্লা, আহসান মঞ্জিল, তারা মসজিদ, জাতীয় শহিদ মিনারসহ অসংখ্য স্থাপনা রয়েছে যেগুলো পর্যটক আকর্ষণে যথেষ্ট ভূমিকা রাখতে পারে। এছাড়াও বৈচিত্রময় সাংস্কৃতিক উৎসব, ঐতিহ্যবাহী খাবার এবং জনগণের আন্তরিকতা সহজেই দেশি-বিদেশি পর্যটককে মুগ্ধ করতে যথেষ্ট। তাই, এই সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরের মাধ্যমে পর্যটন শিল্পের প্রাণ সঞ্চার হবে বলেই আমার বিশ্বাস।

পর্যটন শিল্পের বিকাশে উদ্যোগ গ্রহণ করা হচ্ছে জানিয়ে মেয়র শেখ তাপস বলেন, আমাদের ঐতিহাসিক স্থাপনার সংখ্যা প্রচুর। সেসব স্থাপনা আমাদের পর্যটন শিল্পের বিকাশে দারুণ ভূমিকা রাখতে পারে। তাই, আমরা সেগুলোকে পর্যায়ক্রমে পুনরুজ্জীবন দানে কার্যক্রম শুরু করছি। এরই অংশ হিসেবে আমাদের নর্থব্রুক হলের সংস্কার কার্যক্রম শুরু হয়েছে।

সিস্টার সিটিজ’র ধারণা বিশ্বব্যাপী বহুল প্রচলিত হলেও বাংলাদেশে এই প্রথম উদ্যোগ গ্রহণ করা হলো জানিয়ে মেয়র শেখ তাপস বলেন, “সিস্টার সিটিজ এর ধারণা একেবারে নতুন না হলেও খুব বেশি পুরোনোও নয়। দক্ষিণ সিটি করপোরেশন বুখারেস্টের সাথে সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরের মাধ্যমে নতুন আরেকটি দিগন্ত উন্মোচিত করলো। এই সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষর দু’দেশের বাণিজ্যিক ও পর্যটন সম্পর্ক যেমন বৃদ্ধি করবে তেমনি অর্থনৈতিক পরিসর বৃদ্ধিতেও ভূমিকা রাখবে।

অনুষ্ঠানে বুখারেস্টের মেয়র রবার্ট সোরিন নেগোইতা বলেন, আমাদের প্রত্যাশা এ সমঝোতার মাধ্যমে উভয় শহরেই কর্মসংস্থান, বাণিজ্য এবং পর্যটনের সুযোগ তৈরি হবে। এছাড়া দুই শহরের বাইরেও দুই দেশের মানুষে মানুষে যোগাযোগ বাড়বে। এই সমঝোতা পারস্পরিক সম্পর্ক উন্নয়নেও গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখবে।

বাংলাদেশ তাকে মুগ্ধ করেছে জানিয়ে বুখারেস্টের মেয়র রবার্ট সোরিন নেগোইতা বলেন, “বাংলাদেশ খুবই চমৎকার দেশ। এ দেশের মানুষও অত্যন্ত অমায়িক। আমি বাংলাদেশের মানুষের আতিথেয়তায় মুগ্ধ হয়েছি, বাংলাদেশের বৈচিত্রময় পরিবেশ আমাকে মুগ্ধ করেছে। বাংলাদেশে শুধু রোমানিয়া নয়, ইউরোপীয় পর্যটকের সংখ্যা বাড়াতেও আমি কাজ করবো।
বুখারেস্টের মেয়র দক্ষিণ সিটি করপোরেশন গৃহীত কামরাঙ্গীরচরে কেন্দ্রীয় বাণিজ্যিক অঞ্চলে (সেন্ট্রাল বিজনেস ডিস্ট্রিক্ট) বিনিযোগাগের আগ্রহ ব্যক্ত করেন।

অনুষ্ঠানে দক্ষিণ সিটির মেয়র শেখ তাপস বুখারেস্টের মেয়র রবার্ট নেগোইতাকে পারস্পরিক সহযোগিতার স্মারক হিসেবে ‘ঢাকার চাবি’ হস্তান্তর করেন। এ সময় র বুখারেস্টের মেয়রকে ঢাকার ঐতিহ্যবাহী বাহন ‘রিক্সা’ এর স্মারকও উপহার দেন।

এ সময় অন্যান্যের মধ্যে দক্ষিণ সিটির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ফরিদ আহাম্মদ,প্রধান বর্জ্য ব্যবস্থাপনা কর্মকর্তা সিতওয়াত নাঈম, সচিব আকরামুজ্জামান, প্রধান প্রকৌশলী সালেহ আহম্মেদ, ভারপ্রাপ্ত প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. ফজলে শামসুল কবির, করপোরেশনের কাউন্সিলরবৃন্দ, বুখারেস্ট পুলিশের ডেপুটি ডিরেক্টর ভিক্টর নিয়াগু, বুখারেস্টের সিটি ম্যানেজার মারিউস ড্যানিয়েল সিওবিকা, রোমানিয়া বাংলাদেশ চেম্বার অব কমার্সের সভাপতি মোহাম্মদ রফিকুল ইসলাম উপস্থিত ছিলেন।

Facebook Comments Box
(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

Posted ৭:১৪ অপরাহ্ণ | মঙ্গলবার, ১৫ মার্চ ২০২২

bankbimaarthonity.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আর্কাইভ ক্যালেন্ডার

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮২৯৩০৩১
প্রধান সম্পাদক: মোহাম্মাদ মুনীরুজ্জামান
নিউজরুম:

মোবাইল: ০১৭১৫-০৭৬৫৯০, ০১৮৪২-০১২১৫১

ফোন: ০২-৮৩০০৭৭৩-৫, ই-মেইল: bankbima1@gmail.com

সম্পাদকীয় ও বাণিজ্যিক কার্যালয়: পিএইচপি টাওয়ার, ১০৭/২, কাকরাইল, ঢাকা-১০০০।