• পরীক্ষার কারণে দর্শক নেই বিপিএলে

    বিবিএনিউজ.নেট | ২০ ডিসেম্বর ২০১৯ | ১০:১৭ পূর্বাহ্ণ

    পরীক্ষার কারণে দর্শক নেই বিপিএলে
    apps

    বাংলাদেশের ঘরোয়া ক্রিকেটের সেরা টুর্নামেন্ট ধরা হয় বিপিএল টি-টোয়েন্টিকে। যেখানে বিভিন্ন ফ্র্যাঞ্চাইজি তথা দলে দেশি-বিদেশি খেলোয়াড়দের মিশেলে বসে তারার মেলা। প্রায় প্রতি আসরেই থাকেন বেশ কয়েকজন তারকা বিদেশি ক্রিকেটার। যা কি না বাড়িয়ে দেয় বিপিএলের আকর্ষণ।

    চলতি আসরে আন্দ্রে রাসেল, রাইলি রুশো, শহিদ আফ্রিদি, থিসারা পেরেরারা আছেন। গত আসরে এদের সঙ্গে আরও ছিলেন এবি ডি ভিলিয়ার্স, স্টিভেন স্মিথ, ডেভিড ওয়ার্নার, অ্যালেক্স হেলস, রশিদ খানরা; কিন্তু সে তুলনায় দর্শক আগ্রহ মিলছে না দুই আসর ধরেই।

    Progoti-Insurance-AAA.jpg

    টুর্নামেন্টের শেষদিকে মাঠ ভরলেও শুরুতে দর্শকখরার গত আসরের চিত্র চলমান রয়েছে এবারেও। ঢাকার প্রথম পর্বে খেলা হয়েছে চারদিন। শুধুমাত্র শুক্রবারে দেখা গেছে দর্শকের ঢল। বাকি তিনদিন খালিই পড়েছিল দেশের হোম অব ক্রিকেট।

    অভিন্ন চিত্র চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামেও। এই পর্বের প্রথম দুইদিনে ভরেনি গ্যালারির এক-তৃতীয়াংশ জায়গাও। স্থানীয় দল চট্টগ্রামের খেলার সময় পূর্ব গ্যালারিতে দর্শকের ভিড় দেখা গেলেও, খালি ছিলো পশ্চিম গ্যালারির প্রায় পুরোটা। এছাড়া ইন্টারন্যাশনাল গ্যালারি ও গ্র্যান্ড স্ট্যান্ডেও ছিলো হাতে গোনা কিছু দর্শক।


    এমন দর্শক অনাগ্রহ বা দর্শকখরার কারণ ব্যাখ্যা করতে গিয়ে জাতীয় দলের প্রধান নির্বাচক ও বিপিএলে রংপুর রেঞ্জার্সের টেকনিক্যাল অ্যাডভাইজর মিনহাজুল আবেদিন নান্নু জানিয়েছেন, বিশেষ এক কারণ। তার মতে স্কুল-কলেজের ব্যস্ততার কারণেই মাঠে নেই দর্শক। চলতি মাসের শেষে বা জানুয়ারির শুরুতে মাঠে দর্শক উপস্থিতি বাড়বে বলেই বিশ্বাস তার।

    এমএ আজিজ স্টেডিয়ামে উপস্থিত সাংবাদিকের নান্নু বলেন, ‘টুর্নামেন্টের শুরু থেকে সবসময়ই দর্শক একটু কম থাকে। এরপর আস্তে আস্তে বাড়ে। তারপর আবার ডিসেম্বর মাস, পরীক্ষার একটা ব্যাপার আছে। সে হিসেবে আমার মনে হয় ডিসেম্বরের শেষে বা জানুয়ারির শুরুতে দর্শক অবশ্যই বাড়বে। স্কুল, কলেজগুলো ছুটি হবে। এখন খেলাও ভালো হচ্ছে, সবার আগ্রহও বাড়ছে। সে হিসেবে মনে করি, সামনের দিনগুলোতে দর্শক বাড়বে।’

    টুর্নামেন্টে বিদেশিদের তাল মিলিয়ে দেশি খেলোয়াড়দের পারফরম্যান্সে সন্তুষ্টি প্রকাশ করে নান্নু বলেন, ‘আসলে টুর্নামেন্টের মাঝামাঝি না গেলে বিশ্লেষণ করা কঠিন। কারণ সীমিত ওভারের ক্রিকেট। এখানে সব খেলোয়াড়ের কিন্তু সমানভাবে সুযোগ থাকে না। সে হিসেবে আগামী ৩-৪টা ম্যাচ যাওয়ার পর বলা যাবে। তারপরেও যেভাবে বিপিএল চলছে, অবশ্যই আমরা সে খোঁজ রাখি। বেশ ভালো হচ্ছে, চ্যালেঞ্জিং খেলা হচ্ছে। প্রতিটা ম্যাচেই বিদেশিদের সঙ্গে দেশি খেলোয়াড়রাও পারফরম করছে।’

    Facebook Comments Box

    বাংলাদেশ সময়: ১০:১৭ পূর্বাহ্ণ | শুক্রবার, ২০ ডিসেম্বর ২০১৯

    bankbimaarthonity.com |

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    ছোটপর্দায় আজকের খেলা

    ০৪ জানুয়ারি ২০১৯

    Archive Calendar

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০
    ১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
    ১৮১৯২০২১২২২৩২৪
    ২৫২৬২৭২৮২৯৩০  
  • ফেসবুকে ব্যাংক বীমা অর্থনীতি