শনিবার ২৪ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ১১ ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

প্রজ্ঞাপন সংশোধন

শুধু রেড জোনেই সাধারণ ছুটি

নিজস্ব প্রতিবেদক   |   সোমবার, ১৫ জুন ২০২০   |   প্রিন্ট   |   311 বার পঠিত

শুধু রেড জোনেই সাধারণ ছুটি

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ রুখতে রেড ও ইয়েলো জোন হিসবে চিহ্নিত এলাকায় সাধারণ ছুটি ঘোষণা করার কয়েক ঘণ্টার মধেই প্রজ্ঞাপন সংশোধন করেছে সরকার। সংশোধিত প্রজ্ঞাপন অনুসারে, ইয়েলো নয়, শুধু রেড জোন সাধারণ ছুটির আওতায় থাকবে।

আজ সোমবার (১৫ জুন) রাতে নতুন প্রজ্ঞাপনটি জারি করা হয়েছে। তবে এর আগে আজ বিকাল সাড়ে পাঁচটার দিকে জারি করা প্রথম প্রজ্ঞাপনে রেড ও ইয়েলো জোনে ছুটির কথা বলা হয়েছিল।

তবে প্রজ্ঞাপন সংশোধন হলেও প্রথম প্রজ্ঞাপনের অন্যান্য বিষয় অপরিবর্তিত থাকবে।

প্রথম প্রজ্ঞাপন অনুসারে, আগামীকাল ১৬ জুন (মঙ্গলবার) রেড জোনে সাধারণ ছুটি শুরু হবে, চলবে ৩০ জুন (মঙ্গলবার) পর্যন্ত।

তবে রেড জোন, ইয়েলো জোন ও গ্রিন জোনের কথা বলা হলেও সরকারের দিক থেকে এখন পর্যন্ত দেশের বিভিন্ন অঞ্চলকে সুনির্দিষ্টভাবে চিহ্নিত করে কোনো প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়নি। ফলে আগামীকাল থেকে কোন কোন এলাকায় ছুটি থাকবে তা নিয়ে বেশ অস্পষ্টতা রয়েছে। একই সঙ্গে অস্পষ্টতা আছে, রেড জোনে বসবাসকারী কোনো ব্যক্তির অফিস যদি গ্রিন বা ইয়েলো জোনে থাকে, তাহলে তার ক্ষেত্রে বিষয়টি কিভাবে প্রযোজ্য হবে।

এদিকে জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন বেসরকারি ইনডিপেনডেন্ট টেলিভিশনকে দেওয়া এক সাক্ষাতকারে বলেছেন, অনাকাঙ্খিত কিছু সমস্যায় আগের প্রজ্ঞাপনে ভুল হয়েছিল। একইসঙ্গে তিনি জানিয়েছেন, রেড জোন হলেই লকডাউন হবে না। স্থানীয় কর্তৃপক্ষ স্বাস্থ্যমন্ত্রণালয়ের অনুমতি নিয়ে সেটি করবে। তাই একই সঙ্গে সব জায়গায় লকডাউন কার্যকর করা হবে না। আবার পুরো রেড জোনও এর আওতায় আসবে না। বরং রেড জোনের মধ্যে সবচেয়ে খারাপ এলাকা যা, ম্যানেজ করা সম্ভব সেটিকে লকডাউন করা হবে।

সরকারিভাবে রেড জোন ঘোষণা না করে সেখানে সাধারণ ছুটি ঘোষণা করার বিষয়টি সমন্বয়হীনতার কারণে হয়েছে কি-না, এমন একটি প্রশ্নের উত্তর তিনি এড়িয়ে গিয়ে বলেন, সাধারণ ছুটির বিষয়টি চূড়ান্ত হয়েছে। এখন বাকী বিষয়গুলোও সহজ হয়ে যাবে।

উল্লেখ, দেশে গত ৮ মার্চ প্রথম তিনজন করোনায় আক্রান্ত শনাক্ত হয়। এর প্রেক্ষিতে করোনাভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে ২৬ মার্চ থেকে সাধারণ ছুটি ঘোষণা করে সরকার। পরে কয়েক দফায় ছুটির মেয়াদ বাড়ানো হয়। গত ৩০ মে ওই মেয়াদের সাধারণ ছুটি শেষ হয়। চালু হয় অফিস-আদালত, গণপরিবহণ। এদিকে তীব্র হতে থাকে করোনার সংক্রমণ। বিশেষজ্ঞরা এর জন্য সব কিছু খুলে দেওয়ার বিষয়টিকে দায়ী করেন। এর প্রেক্ষিতে আজ ৩০ জুন পর্যন্ত সময়ের জন্য সাধারণ ছুটি ঘোষণা করা হয়।

সোমবার (১৫ জুন) মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে জারি করা নির্দেশনায় বলা হয়, লাল জোনে অবস্থিত সামরিক ও অসামরিক সরকারি, আধা-সরকারি, স্বায়ত্তশাসিত, আধা স্বায়ত্তশাসিত ও বেসরকারি দফতরসমূহ এবং লাল ও হলুদ অঞ্চলে বসবাসকারী বর্ণিত দফতরের কর্মকর্তারা সাধারণ ছুটির আওতায় থাকবেন। জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় এ বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।

উল্লেখ, বেশি আক্রান্ত এলাকাকে রেড, অপেক্ষাকৃত কম আক্রান্ত এলাকাকে ইয়োলো ও একেবারে কম আক্রান্ত বা আক্রান্ত মুক্ত এলাকাকে গ্রিন জোন হিসেবে চিহ্নিত করার কথা। তবে এখন পর্যন্ত সরকার রাজধানীর পূর্ব রাজাবাজারসহ দেশের আঙ্গুলে গোনা কয়েকটি এলাকাকে রেড জোন হিসেবে ঘোষণা দিয়েছে। বাকী এলাকাগুলোর বিষয়ে স্পষ্টভাবে এখনো কিছু বলা হয়নি।

Facebook Comments Box
(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

Posted ১১:০৯ অপরাহ্ণ | সোমবার, ১৫ জুন ২০২০

bankbimaarthonity.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আর্কাইভ ক্যালেন্ডার

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩১৪১৫১৬
১৭১৮১৯২০২১২২২৩
২৪২৫২৬২৭২৮২৯  
প্রধান সম্পাদক: মোহাম্মাদ মুনীরুজ্জামান
নিউজরুম:

মোবাইল: ০১৭১৫-০৭৬৫৯০, ০১৮৪২-০১২১৫১

ফোন: ০২-৮৩০০৭৭৩-৫, ই-মেইল: bankbima1@gmail.com

সম্পাদকীয় ও বাণিজ্যিক কার্যালয়: পিএইচপি টাওয়ার, ১০৭/২, কাকরাইল, ঢাকা-১০০০।