শুক্রবার ২৪ মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ১০ জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংকের লভ্যাংশ নির্ধারণী পর্ষদ সভা ১৯ মার্চ

বিবিএনিউজ.নেট   |   রবিবার, ১৫ মার্চ ২০২০   |   প্রিন্ট   |   343 বার পঠিত

স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংকের লভ্যাংশ নির্ধারণী পর্ষদ সভা ১৯ মার্চ

স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংক লিমিটেডের পরিচালনা পর্ষদের সভা ১৯ মার্চ অনুষ্ঠিত হবে। সভায় অন্যান্য বিষয়ের পাশাপাশি ৩১ ডিসেম্বর সমাপ্ত ২০১৯ হিসাব বছরে কোম্পানিটির নিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন পর্যালোচনা করা হবে।

সর্বশেষ সমাপ্ত হিসাব বছরের প্রথম তিন প্রান্তিকে (জানুয়ারি-সেপ্টেম্বর) স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংকের সম্মিলিত শেয়ারপ্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ৪৫ পয়সা, যা আগের বছরের একই সময়ে ছিল ১১ পয়সা। তৃতীয় প্রান্তিকে (জুলাই-সেপ্টেম্বর) ব্যাংকটির সম্মিলিত ইপিএস হয়েছে ৩৬ পয়সা, যা আগের বছরের একই সময়ে ছিল ২ পয়সা। ৩০ সেপ্টেম্বর ব্যাংকটির শেয়ারপ্রতি নিট সম্পদমূল্য (এনএভিপিএস) দাঁড়িয়েছে ১৫ টাকা ৮৭ পয়সা, যা আগের বছরের একই সময়ে ছিল ১৪ টাকা ৩০ পয়সা।

২০১৮ সালের ৩১ ডিসেম্বর সমাপ্ত হিসাব বছরের জন্য শেয়ারহোল্ডারদের ১০ শতাংশ স্টক লভ্যাংশ দেয় স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংক। আলোচ্য সময়ে ব্যাংকটির সম্মিলিত ইপিএস হয় ১ টাকা ৪৪ পয়সা, যা আগের হিসাব বছরে ছিল ১ টাকা ৪২ পয়সা। ৩১ ডিসেম্বর সম্মিলিত এনএভিপিএস দাঁড়ায় ১৭ টাকা ১ পয়সা। ২০১৭ হিসাব বছরেও ১০ শতাংশ স্টক লভ্যাংশ পেয়েছিলেন ব্যাংকের শেয়ারহোল্ডাররা।

সর্বশেষ ঋণমান অনুসারে, স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংকের ঋণমান দীর্ঘমেয়াদে ‘ডাবল এ’ ও স্বল্পমেয়াদে ‘এসটি-টু’। ২০১৮ সালের ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত নিরীক্ষিত ও চলতি হিসাব বছরের ৩১ মার্চ পর্যন্ত প্রথম প্রান্তিকের অনিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদনসহ হালনাগাদ প্রাসঙ্গিক অন্যান্য তথ্যের ভিত্তিতে এ মূল্যায়ন করেছে ক্রেডিট রেটিং ইনফরমেশন অ্যান্ড সার্ভিসেস লিমিটেড (সিআরআইএসএল)।

ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) বৃহস্পতিবার স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংক শেয়ারের সর্বশেষ দর ছিল ৮ টাকা। সমাপনী দর ৭ টাকা ৯০ পয়সা। গত এক বছরে শেয়ারটির সর্বনিম্ন ও সর্বোচ্চ দর যথাক্রমে ৭ টাকা ৬০ পয়সা ও ১১ টাকা ৫০ পয়সা।

২০০৩ সালে শেয়ারবাজারে আসা স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংকের অনুমোদিত মূলধন ১ হাজার ৫০০ কোটি টাকা। পরিশোধিত মূলধন ৯৫৮ কোটি ৮ লাখ ৬০ হাজার টাকা। রিজার্ভে রয়েছে ৫২৩ কোটি ৫৪ লাখ টাকা। মোট শেয়ারসংখ্যা ৯৫ কোটি ৮০ লাখ ৮৬ হাজার ৪৬৫। এর মধ্যে উদ্যোক্তা পরিচালকদের হাতে রয়েছে ৩৯ দশমিক ৬৩ শতাংশ শেয়ার। এছাড়া প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীদের কাছে ২১ দশমিক ৯৬ শতাংশ, বিদেশী বিনিয়োগকারীদের কাছে ১ দশমিক ২৬ ও সাধারণ বিনিয়োকারীদের হাতে বাকি ৩৭ দশমিক ১৫ শতাংশ শেয়ার রয়েছে।

সর্বশেষ নিরীক্ষিত ইপিএস ও বাজারদরের ভিত্তিতে শেয়ারটির মূল্য-আয় অনুপাত বা পিই রেশিও ৬ দশমিক শূন্য ৩, অনিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদনের ভিত্তিতে যা ১৩ দশমিক ১৭।

Facebook Comments Box
(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

Posted ১২:৩৬ অপরাহ্ণ | রবিবার, ১৫ মার্চ ২০২০

bankbimaarthonity.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

এ বিভাগের আরও খবর

আর্কাইভ ক্যালেন্ডার

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮২৯৩০৩১
প্রধান সম্পাদক: মোহাম্মাদ মুনীরুজ্জামান
নিউজরুম:

মোবাইল: ০১৭১৫-০৭৬৫৯০, ০১৮৪২-০১২১৫১

ফোন: ০২-৮৩০০৭৭৩-৫, ই-মেইল: bankbima1@gmail.com

সম্পাদকীয় ও বাণিজ্যিক কার্যালয়: পিএইচপি টাওয়ার, ১০৭/২, কাকরাইল, ঢাকা-১০০০।