• ১১ প্রতিষ্ঠানের আর্থিক প্রতিবেদন প্রকাশ

    | ২৭ অক্টোবর ২০২১ | ৭:৪১ অপরাহ্ণ

    ১১ প্রতিষ্ঠানের আর্থিক প্রতিবেদন প্রকাশ
    apps

    শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত ১১ প্রতিষ্ঠান আর্থিক প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে। কোম্পানিগুলো হলো-আরএকে সিরামিকস, পপুলার লাইফ ইন্সুরেন্স, প্রাইম ইসলামী লাইফ ইন্স্যুরেন্স, প্যারামাউন্ট ইন্স্যুরেন্স, ভ্যানগার্ড-রূপালী ব্যাংক ব্যালান্সড ফান্ড, আইডিএলসি ফাইন্যান্স, প্রভাতী ইন্স্যুরেন্স, যমুনা ব্যাংক, নর্দার্ন ইন্স্যুরেন্স, এনআরবিসি ব্যাংক এবং ইবিএল। ডিএসই সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

    আরএকে সিরামিকস লিমিটেড : তৃতীয় প্রান্তিকে (জুলাই’২১-সেপ্টেম্বর’২১) কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি সমন্বিত আয় হয়েছে ৪৬ পয়সা। গত বছর একই সময়ে যার পরিমাণ ছিল ২৯ পয়সা।
    এদিকে প্রথম তিন প্রান্তিক মিলিয়ে তথা ৯ মাসে (জানুয়ারি’২১-সেপ্টেম্বর’২১) কোম্পানিটির সমন্বিত ইপিএস হয়েছে একটাকা ৪৭ পয়সা। গত বছর একই সময়ে যার পরিমাণ ছিল ২১ পয়সা।
    গত ৩০ সেপ্টেম্বর, ২০২১ তারিখে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি সমন্বিত নিট সম্পদ মূল্য ছিল ১৬ টাকা ৮৮ পয়সা।

    Progoti-Insurance-AAA.jpg

    প্যারামাউন্ট ইন্স্যুরেন্স লিমিটেড : তৃতীয় প্রান্তিকে (জুলাই’২১-সেপ্টেম্বর’২১) কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ৪৯ পয়সা। গত বছর একই সময়ে যার পরিমাণ ছিল ২ টকা ৬৮ পয়সা।
    এদিকে প্রথম তিন প্রান্তিক মিলিয়ে তথা ৯ মাসে (জানুয়ারি’২১-সেপ্টেম্বর’২১) কোম্পানিটির ইপিএস হয়েছে একটাকা ৩ টাকা ৮ পয়সা। গত বছর একই সময়ে যার পরিমাণ ছিল ২ টাকা ৯৪ পয়সা।
    গত ৩০ সেপ্টেম্বর, ২০২১ তারিখে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য ছিল ২৫ টাকা ৪২ পয়সা। গত বছর একই সময়ে যার পরিমাণ ছিল ২০ টাকা ৯২ পয়সা।

    ভ্যানগার্ড-রূপালী ব্যাংক ব্যালান্সড ফান্ড : তৃতীয় প্রান্তিকে ফান্ডটির ইউনিট প্রতি আয় (ইপিইউ) হয়েছে ৩৪ পয়সা। আগের বছর একই সময়ে ইপিইউ ছিল ১৪ পয়সা। চলতি অর্থবছরের প্রথম তিন প্রান্তিকে অর্থাৎ ৯ মাসে (জানুয়ারি-সেপ্টেম্বর’২১) ফান্ডটির ই্পইিউ হয়েছে ৯১ পয়সা। গত বছরের একই সময়ে তা ছিল ১৯ পয়সা।


    পপুলার লাইফ ইন্স্যুরেন্স কোম্পানি লিমিটেড : তৃতীয় প্রান্তিকে (জুলাই-সেপ্টেম্বর’২১) কোম্পানিটি কনসুলেটেড ৬৩ কোটি ৩ লাখ টাকার প্রিমিয়াম আহরণ করেছে, যা আগের বছর একই সময়ে ছিল ৪৩ কোটি ৩৭ লাখ টাকা।
    এদিকে, প্রথম তিন প্রান্তিক তথা ৯ মাসে (জানুয়ারি-সেপ্টেম্বর’২১) কোম্পানিটির প্রিমিয়াম আয় কমেছে ১৪৪ কোটি ২৯ লাখ টাকার। আর লাইফ ফান্ডের পরিমাণ ছিল ১ হাজার ৬১৫ কোটি ৬৩ লাখ টাকা।
    আগের বছর একই সময় কোম্পানিটি ৭৭ কোটি ১৫ লাখ টাকা প্রিমিয়াম আয় করেছিল এবং লাইফ ফান্ডের পরিমাণ ছিল ১ হাজার ৬২০ কোটি ৪২ লাখ টাকার।

    প্রাইম ইসলামী লাইফ ইন্স্যুরেন্স কোম্পানি লিমিটেড : তৃতীয় প্রান্তকে (জুলাই’২১-সেপ্টেম্বর’২১) কোম্পানিটি ১৩ লাখ টাকার প্রিমিয়াম আহরণ করেছে, যা আগের বছর একই সময়ে ছিল ২৪ কোটি ৪৭ লাখ টাকা।
    প্রথম তিন প্রান্তিক তথা ৯ মাসে (জানুয়ারি-সেপ্টেম্বর’২১) কোম্পানিটির প্রিমিয়াম আয় কমেছে ১১০ কোটি ৬৭ লাখ টাকার। আগের বছরের একই সময়ে তা ছিল ৭২৬ কোটি ৯ লাখ টাকা।
    আলোচ্য সময়ে কোম্পানিটির লাইফ ফান্ডের পরিমাণ দাঁড়িয়েছে ৮৫ কোটি ২৯ লাখ টাকার এবং ৭৯৬ কোটি ৭৩ লাখ টাকার।

    আইডিএলসি ফাইন্যান্স : তৃতীয় প্রান্তিকে সহযোগী প্রতিষ্ঠানের আয়সহ আইডিএলসি ফাইন্যান্সের সমন্বিত শেয়ার প্রতি আয় হয়েছে ১ টাকা ৪১ পয়সা। গত বছর একই সময়ে সমন্বিত ইপিএস হয়েছিল ২ টাকা ৩৯ পয়সা। হিসাববছরের প্রথম তিন প্রান্তিক মিলিয়ে তথা ৯ মাসে (জানুয়ারি’২১-সেপ্টেম্বর’২১) কোম্পানিটির ইপিএস হয়েছে ৪ টাকা ২ পয়সা। গত বছরের একই সময়ে তা ৪ টাকা ৭ পয়সা ছিল। গত ৩০ সেপ্টেম্বর, ২০২১ তারিখে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য ছিল ৪১ টাকা ৯ পয়সা।

    প্রভাতী ইন্স্যুরেন্স : তৃতীয় প্রান্তিকে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি আয় হয়েছে ১ টাকা ১২ পয়সা। গত বছর একই সময়ে ৪৯ পয়সা ইপিএস হয়েছিল।
    হিসাববছরের প্রথম তিন প্রান্তিক মিলিয়ে তথা ৯ মাসে (জানুয়ারি’২১-সেপ্টেম্বর’২১) কোম্পানিটির ইপিএস হয়েছে ২ টাকা ৯৪ পয়সা। গত বছরের একই সময়ে তা ১ টাকা ৪৩ পয়সা ছিল। গত ৩০ সেপ্টেম্বর, ২০২১ তারিখে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য ছিল ২০ টাকা ৯৮ পয়সা।

    যমুনা ব্যাংক : তৃতীয় প্রান্তিকে ব্যাংকটির সমন্বিত শেয়ার প্রতি আয় হয়েছে ১ টাকা ২৩ পয়সা। গত বছর একই সময়ে ব্যাংকটির সমন্বিত ইপিএস হয়েছিল ১ টাকা ১১ পয়সা। হিসাববছরের প্রথম তিন প্রান্তিক মিলিয়ে তথা ৯ মাসে (জানুয়ারি’২১-সেপ্টেম্বর’২১) ব্যাংকটির সমন্বিত ইপিএস হয়েছে ৩ টাকা ৮৭ পয়সা। গত বছরের একই সময়ে তা ৩ টাকা ১৮ পয়সা ছিল। গত ৩০ সেপ্টেম্বর, ২০২১ তারিখে ব্যাংকটির শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য ছিল ৩২ টাকা ৭৫ পয়সা।

    নর্দার্ন ইন্স্যুরেন্স : তৃতীয় প্রান্তিকে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি আয় হয়েছে ৫৬ পয়সা। গত বছর একই সময়ে ৬১ পয়সা ইপিএস হয়েছিল। হিসাববছরের প্রথম তিন প্রান্তিক মিলিয়ে তথা ৯ মাসে (জানুয়ারি’২১-সেপ্টেম্বর’২১) কোম্পানিটির ইপিএস হয়েছে ১ টাকা ৩৯ পয়সা। গত বছরের একই সময়ে তা ১ টাকা ৪২ পয়সা ছিল। গত ৩০ সেপ্টেম্বর, ২০২১ তারিখে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য ছিল ২০ টাকা ৬২ পয়সা।

    এনআরবিসি ব্যাংক : তৃতীয় প্রান্তিকে ব্যাংকটির সমন্বিত শেয়ার প্রতি আয় হয়েছে ১ টাকা ১১ পয়সা। গত বছর একই সময়ে ব্যাংকটির সমন্বিত ইপিএস হয়েছিল ১ টাকা ৪২ পয়সা। হিসাববছরের প্রথম তিন প্রান্তিক মিলিয়ে তথা ৯ মাসে (জানুয়ারি’২১-সেপ্টেম্বর’২১) ব্যাংকটির সমন্বিত ইপিএস হয়েছে ২ টাকা ২২ পয়সা। গত বছরের একই সময়ে তা ১ টাকা ৯১ পয়সা ছিল। গত ৩০ সেপ্টেম্বর, ২০২১ তারিখে ব্যাংকটির শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য ছিল ১৬ টাকা ১৪ পয়সা।

    ইবিএল : তৃতীয় প্রান্তিকে ব্যাংকটির সমন্বিত শেয়ার প্রতি আয় হয়েছে ১ টাকা ৬৫ পয়সা। গত বছর একই সময়ে ব্যাংকটির সমন্বিত ইপিএস হয়েছিল ১ টাকা ৪৫ পয়সা। হিসাববছরের প্রথম তিন প্রান্তিক মিলিয়ে তথা ৯ মাসে (জানুয়ারি’২১-সেপ্টেম্বর’২১) ব্যাংকটির সমন্বিত ইপিএস হয়েছে ৪ টাকা ২১ পয়সা। গত বছরের একই সময়ে তা ৩ টাকা ১০ পয়সা ছিল। গত ৩০ সেপ্টেম্বর, ২০২১ তারিখে ব্যাংকটির শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য ছিল ৩২ টাকা ৭৩ পয়সা।

    Facebook Comments Box

    বাংলাদেশ সময়: ৭:৪১ অপরাহ্ণ | বুধবার, ২৭ অক্টোবর ২০২১

    bankbimaarthonity.com |

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    Archive Calendar

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০
    ১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
    ১৮১৯২০২১২২২৩২৪
    ২৫২৬২৭২৮২৯৩০৩১
  • ফেসবুকে ব্যাংক বীমা অর্থনীতি