• ৩য় কোয়ার্টারে লাইফ বীমাকারীর ব্যবসার দক্ষতার মূল্যায়ন

    ৩য় কোয়ার্টারে লাইফ বীমাকারীর গ্রস প্রিমিয়াম প্রবৃদ্ধি হ্রাস

    | ০৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ | ৯:০৫ অপরাহ্ণ


    apps

     

     

    বীমা উন্নয়ন ও নিয়ন্ত্রণ কর্তৃপক্ষ বরাবরে দাখিলকৃত জীবন বীমা কোম্পানীগুলোর ৩য় কোয়ার্টারের (১ জুলাই ২০১৮ হতে ৩০ সেপ্টেম্বর ২০১৮ পর্যন্ত) ব্যবসার দক্ষতার মূল্যায়নে লাইফ বীমাকারীর গ্রস প্রিমিয়াম প্রবৃদ্ধি হ্রাস পেয়েছে।

     


    গত ১১ ডিসেম্বর ২০১৮ ইং তারিখ বীমা উন্নয়ন ও নিয়ন্ত্রণ কর্তৃপক্ষের সভাকক্ষে দেশের সকল বীমা কোম্পানীর ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও মুখ্য নির্বাহীদের সঙ্গে আইডিআরএ’র সদস্যদের অনুষ্ঠিত ত্রৈমাসিক সমন্বয় সভায় ৩য় কোয়ার্টারের (১ জুলাই ২০১৮ হতে ৩০ সেপ্টেম্বর ২০১৮ পর্যন্ত) ব্যবসার দক্ষতার মূল্যায়ন প্রতিবেদন নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা হয়।

    Progoti-Insurance-AAA.jpg

     

    আইডিআরএ’র সূত্রমতে বিভিন্ন বীমাকারী হতে সংগৃহীত তথ্যের ভিত্তিতে বিগত ২০১৭ সালের সাথে ২০১৮ সালের এবং ১ম ও ২য় কোয়ার্টারের সাথে ৩য় কোয়ার্টারের প্রিমিয়াম আয় পর্যালেচনা করে পরিলক্ষিত হয় যে, লাইফ বীমাকারীর ২০১৭ সালে সংগ্রহ মোট ৮২১৫ কোটি টাকার গ্রস প্রিমিয়াম এবং ২০১৮ সালের ১ম, ২য় ও ৩য় কোয়ার্টারে ৫৭৭৯.১৬ কোটি টাকা। অর্থাৎ ২০১৮ সালের ২য় কোয়ার্টারের তুলনায় ৩য় কোয়ার্টারে -২.০৩% হারে গ্রস প্রিমিয়াম আয় করেছে, যা তুলনামূলক বিশ্লেষনে মোটেই সন্তোষজনক নয়।

    লাইফ বীমা খাতের মোট প্রিমিয়াম আয়ের তুলনামূলক চিত্রঃ

    (কোটি টাকায়)

    ২০১৮ সালের ৩য় কোয়ার্টার পর্যন্ত লাইফ বীমাকারীর মোট গ্রস প্রিমিয়াম আয় ২০০৩.২৯ কোটি টাকার মধ্যে একক বীমা (অর্ডিনারী লাইফডড) ৬৫.৪৭%,ক্ষুদ্র বীমা (মাইক্রো ইন্স্যুরেন্স) ১৪.২৪%, গ্রুপ এবং স্বাস্থ্য বীমা ৬.৪৯% এবং ইসলামী তাকাফুল বীমা ১৪.২৪% রয়েছে। এ তথ্য থেকে পরিলক্ষিত হয় যে, লাইফ বীমাকারীর গ্রস প্রিমিয়ামের মধ্যে একক বীমা, ক্ষুদ্র বীমা ও ইসলামী তাকাফুলের গ্রাহকদের কাছ থেকে অধিকাংশ প্রিমিয়াম সংগৃহীত হয়।

    অন্যদিকে ২০১৮ সালের ৩য় কোয়ার্টারের গ্রস প্রিমিয়াম ২০০৩.২৯ কোটি টাকার মধ্যে ১ম বর্ষ প্রিমিয়াম ২৭.৯৩%, ২য় বর্ষ নবায়ন প্রিমিয়াম ১৪.৮৯%, ৩য় ও তদুর্দ্ধ বর্ষের নবায়ন প্রিমিয়াম ৫২.০০% এবং গ্রæপ ও স্বাস্থ্য বীমা খাতে ৪.৭১% প্রিমিয়াম সংগৃহীত হয়েছে।

    এছাড়া ১ম, ২য় ও ৩য় কোয়ার্টারে মোট গ্রস প্রিমিয়াম ৫৭৭৯.১৬ কোটি টাকার মধ্যে একক বীমা ৬৫.৪৪%, ক্ষুদ্র বীমা ১৪.৯৪%, গ্রুপ এবং স্বাস্থ্য বীমা ৬.৯৫% এবং ইসলামী তাকাফুল বীমা ১২.৬৬% রয়েছে।

    সবচেয়ে উল্লেখযোগ্য বিষয় ২য় কোয়ার্টারের তুলনায় লাইফ বীমাকারীর ৩য় কোয়ার্টারে মোট গ্রস প্রিমিয়াম -২.০৭ হারে হ্রাস পেয়েছে, যা হতাশাব্যঞ্জক।

    লাইফ বীমাকারীদের গ্রস প্রিমিয়াম প্রবৃদ্ধি হ্রাসে সভায় উপস্থিত আইডিআরএ’র চেয়ারম্যানসহ সদস্যবৃন্দ হতাশা ব্যক্ত করেন। পরিশেষে সিদ্ধান্ত হয় যে, ২০২১ সালের মধ্যে পেনিট্রেশন ৪% এ উন্নীত করার জন্য প্রত্যেক বীমাকারীকে গত বছরের তুলনায় দ্বিগুন হারে প্রিমিয়াম সংগ্রহ করার উদ্দেশ্যে বাৎসরিক লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারন করে  এবং দেশের  জনগনের চাহিদা অনুযায়ী নতুন বীমা পণ্য তৈরী করে বিক্রয়ের মাধ্যমে পলিসিহোল্ডার বৃদ্ধি করতে হবে।

     

    Facebook Comments Box

    বাংলাদেশ সময়: ৯:০৫ অপরাহ্ণ | বুধবার, ০৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

    bankbimaarthonity.com |

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    Archive Calendar

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১১২১৩
    ১৪১৫১৬১৭১৮১৯২০
    ২১২২২৩২৪২৫২৬২৭
    ২৮২৯৩০৩১  
  • ফেসবুকে ব্যাংক বীমা অর্থনীতি